জীবনসুরক্ষার ২৬ বছর উদযাপিত হলো রক্তদান শিবির এবং সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের মাধ্যমে

বেঙ্গল মিরর, আসানসোল, ১৭ ই ফেব্রুয়ারি ২০২০, সৌরদীপ্ত সেনগুপ্ত : শীতের বিদায়লগ্নে সমগ্র পশ্চিমবঙ্গের সাথে পশ্চিম বর্ধমান জেলার  আসানসোল শিল্পাঞ্চলে রক্তের চাহিদা পাল্লা দিয়ে বাড়তে থাকে। আর ঠিক এই সময়ে  রক্তসঙ্কটের সমস্যা সমাধানে এগিয়ে আসে বিভিন্ন স্বেচ্ছাসেবী সংস্থা।

riju advt

আসানসোলের রাধানগর রোডে অবস্থিত “জীবনসুরক্ষা” এরকমই একটি সরকার অনুমোদিত স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন যা প্রায় দু দশকের ওপরে সমগ্র শিল্পাঞ্চলে রক্তের যোগান দিয়ে এসেছে তাদের নিরলস প্রচেষ্টায়। 

   জীবনসুরক্ষার প্রতিষ্ঠা হয় ১৬ ই ফেব্রুয়ারি, ১৯৯৪। আর  এই সংগঠনটির  ২৬ তম জন্মদিন উদযাপিত হয় গত রবিবার। কচিকাঁচাদের হাত ধরে প্রদীপ প্রজ্জ্বলনের মাধ্যমে সেদিন সকালেই অনুষ্ঠানের সূচনা হবার পর একটি রক্তদান শিবিরের আয়োজন করা হয়। সেখানে উপস্থিত ছিলেন জেলা হাসপাতাল ব্লাড ব্যাংকের দায়িত্বে থাকা ড: সঞ্জিত চ্যাটার্জী, বার্নপুর সোশ্যাল ওয়েলফেয়ার কমিটি এন্ড ভালান্টারি ব্লাড ডোনার্স এর একজিকিউটিভ মেম্বার  শ্রীমতি তঞ্জিমা ধর, জীবন সুরক্ষার সাধারণ সম্পাদক শ্রী  অসীম সরকার এবং সমস্ত সদস্যরা।

অনেক মানুষ এদিন স্বেচ্ছায় রক্ত দেন। সেদিন প্রায় ৪০ ইউনিট রক্ত সংগ্রহ করা হয়। এরপর  ভলান্টারি ব্লাড ডোনার্স অর্গানাইজেশনস সমন্বয় কমিটি পূর্ব পশ্চিম বর্ধমান এর নবনির্বাচিত কার্যকারী কমিটির হাতে বিদায়ী কার্যকরী কমিটি দ্বারা দায়িত্ব অর্পন, বিদায়ী সভাপতি ও সম্পাদিকা কে সম্মাননা প্রদান করা হয়। এছাড়াও নতুন কার্যকরী কমিটির পরিচালন পরিকল্পনা সকল সদস্য সংগঠনগুলির মতামতের ভিত্তিতে আলোচিত হয়। একদম পরিশেষে  সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। কেক কেটে জন্মদিন পালনের সময় উপস্থিত ছিলেন  জীবনসুরক্ষার প্রেসিডেন্ট শ্রী অশোক গুটগুটিয়া , ছিলেন শ্রী পবন গুটগুটিয়া, ওয়ারকিং প্রেসিডেন্ট ড: বিপ্লব দাশগুপ্ত, জেনারেল সেক্রেটারি অসীম সরকার, ই এস আই হসপিটাল সুপারিনটেনডেন্ট এবং  জীবনসুরক্ষার এইচ ও ডি থ্যালাসেমিয়া ড: অতনু ভদ্র , পি আর ও শ্রীমতি অদিতি সেনগুপ্ত, কনভেনর শর্মিলা ব্যানার্জী, এছাড়া তাপস সেনগুপ্ত, মুকেশ টোডি, রমেন্দ্রনাথ মজুমদার, অভিজিৎ ঘোষ প্রমুখ।  

  অতিথিদের মধ্যে সেদিন উপস্থিত ছিলেন আসানসোল করপোরেশনের চেয়ারম্যান শ্রী অমরনাথ চট্টোপাধ্যায়, আসানসোল ডিস্ট্রিক্ট কোর্ট বার অ্যাসোসিয়েশনের প্রেসিডেন্ট  আইনজীবী ও প্রাক্তন বিধায়ক শ্রী অমিতাভ মুখার্জী, শিল্পাঞ্চলে রক্তদান আন্দোলনের পথিকৃৎ শ্রী প্রবীর ধর,  ব্যবসায়ী দীপক রুদ্র, দুর্গাপুর সাব ডিভিশন ভলান্টারি ব্লাড ডোনার্স এর সাধারণ সম্পাদক এবং ফেডারেশন অফ ব্লাড ডোনার অর্গানাইজেশনস অফ ইন্ডিয়ার রাজ্য সম্পাদক শ্রী কবি ঘোষ, ছিলেন সাংস্কৃতিক দল উড়ানের পক্ষ থেকে সুমিত বন্দ্যোপাধ্যায়, চর্যাপদের তরফ থেকে রুদ্রপ্রসাদ চক্রবর্তী প্রমুখ। ছোট্ট পরিসর থেকে আজ এত বড় পরিসরে ২৬ বছর পূর্তি অনুষ্ঠান হলেও এটাই প্রমাণিত হলো যে জীবনসুরক্ষার মত সংস্থা তাদের ঐকান্তিক এবং নিরলস প্রচেষ্টার মাধ্যমে  মানুষের জীবন রক্ষার ব্রত নিয়ে নিঃশব্দে এগিয়ে চলেছে যা সত্যিই প্রশংসনীয়।