ASANSOL

পানীয় জল সমস্যা, রাস্তা সহ বিভিন্ন বিষয়ে আলোচনা, মেয়র বিধান উপাধ্যায়ের উপস্থিতিতে এমআইসি বৈঠক

বেঙ্গল মিরর, আসানসোল, রাজা বন্দোপাধ্যায় ও সৌরদীপ্ত সেনগুপ্তঃ আসানসোল পুরনিগমের ১০৬ টি ওয়ার্ডের সামগ্রিক উন্নয়ন নিয়ে শনিবার আসানসোল পুরনিগমের মেয়র পারিষদ বা এমআইসি বৈঠক হয়।
আসানসোল পুরনিগমের মেয়র বিধান উপাধ্যায়ের চেম্বারে হওয়া এদিনের এই বৈঠক আলোচনা হয়। এই বৈঠকে মেয়র ছাড়াও দুই ডেপুটি মেয়র অভিজিৎ ঘটক এবং ওয়াসিমুল হক, চেয়ারম্যান অমরনাথ চট্টোপাধ্যায় ,পুর কমিশনার রাজু মিশ্র, মেয়র পারিষদ গুরুদাস ওরফে রকেট চট্টোপাধ্যায় সহ অন্যান্য মেয়র পারিষদ ও পুরনিগমের আধিকারিকরা উপস্থিত ছিলেন।


বৈঠক শেষে সাংবাদিকদের মেয়র বিধান উপাধ্যায় বলেন, আজকের বৈঠকে আসানসোল পুরনিগমের ১০৬ টি ওয়ার্ডে উন্নয়ন কাজ নিয়ে আলোচনা করা হয়েছে এদিনের মেয়র পারিষদ বৈঠকে। কিভাবে পুরবাসীদের আরো ভাল নাগরিক পরিষেবা দেওয়া যায় তা নিয়ে আলোচনা করা হয়েছে বৈঠকে। তিনি আরো বলেন, পরবর্তী বোর্ড মিটিংয়ে এই সব সিদ্ধান্ত আনুষ্ঠানিকভাবে কাউন্সিলারদের জানানো হবে। পুর এলাকায় বর্তমানে পানীয় জলের সমস্যা নিয়ে তিনি বলেন, আসানসোলে বিদ্যুৎ দফতরের তরফে অনেক এলাকায় কাজ চলছে । রাস্তা খোঁড়াখুঁড়ি হচ্ছে। এই কাজের কারণে অনেক জায়গায় জল সরবরাহ করা পাইপলাইন নষ্ট হয়ে যাচ্ছে। যে কারণে জলের সমস্যা হচ্ছে। এ বিষয় নিয়ে বিদ্যুৎ বিভাগের সঙ্গে যোগাযোগ করা হয়েছে বলে জানান। আমি বিদ্যুৎ দপ্তরের আধিকারিকদের সাথে কথা বলেছি।  আসানসোল জেলা হাসপাতালের সামনে এসবি গরাই রোডের অবস্থাও খুব খারাপ হয়ে গেছে। এই বিষয়ে মেয়র বিধান উপাধ্যায় বলেন, ঐ রাস্তায় কিছু কাজ বিদ্যুৎ দফতরের তরফে করা হচ্ছে। সেই কারণেই রাস্তা খোঁড়া হয়েছিল।


অন্যদিকে, কুলটি বিধানসভা কেন্দ্রের অন্তর্গত কুলটি পুর এলাকার বেশ কিছু ওয়ার্ডের অনেক জায়গায় গত কয়েক দিন ধরে পানীয়জল সরবরাহে সমস্যা দেখা দিয়েছে। এই বিষয়ে আসানসোল পুরনিগমের বিরোধী দলনেত্রী বিজেপি কাউন্সিলার চৈতালি তেওয়ারি, কুলটির বিজেপি বিধায়ক ডাঃ অজয় পোদ্দার ও ঐসব এলাকার বাসিন্দারা অভিযোগ করেন যে, লোকসভা নির্বাচনে পিছিয়ে পড়ার কারণে পানীয় জল সরবরাহ বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। এই অভিযোগ নিয়ে মেয়র বলেন, এটা সম্পূর্ণ ভিত্তিহীন।  আসানসোল দক্ষিণ বিধানসভা কেন্দ্রে তৃণমূল কংগ্রেসের প্রার্থী লিড না পেলেও সেখান থেকে এমন কোনো অভিযোগ আসছে না তো। যারা এইসব কথা বলছেন, তারা শুধু মিডিয়ায় খবরে ভেসে থাকার জন্য এইসব বলছেন।

Leave a Reply