BARABANI-SALANPUR-CHITTARANJAN

জাতীয় তপসিলি  উপজাতি কমিশনের হস্তক্ষেপের পরে, ইসিএল এর মৃত আদিবাসী কর্মচারীর কন্যা ১২ বছর পর চাকরি পেল

বেঙ্গল মিরর, দেব ভট্টাচার্য , আসানসোল। জাতীয় তপসিলি  উপজাতি কমিশনের হস্তক্ষেপের পরে, ই সি এল এর মৃত আদিবাসী কর্মচারীর কন্যা ১২ বছর পর ইসিএল-এর সালানপুর এরিয়াতে চাকরি পেল। ই সি এল এর গাফেলতির কারণে ১২ বছর একজনের চাকরি জীবন থেকে চলে যাওয়ার বিষয়টি নিয়ে আইএনটিইউসির পক্ষ থেকে উচ্চ আদালতে যাওয়ার ভাবনাচিন্তা শুরু করা হয়েছে ।


জানা গেছে ইসিএল কর্মচারী আসু কোল  ২০১২ সালের ১৭ ই এপ্রিল কর্তব্যরত অবস্থায় মারা যান। এরপর তার মেয়ে দুলালী কোল মৃতের পোষ্য হিসেবে নিয়ম অনুযায়ী চাকরির জন্য আবেদন করেন প্রয়োজনীয় সমস্ত তথ্য দিয়ে ইসিএল কর্তৃপক্ষের কাছে। এমনকি তিনি বিবাহিত নন সেই সম্পর্কিত জনপ্রতিনিধিদের কাছ থেকে তথ্য নিয়ে তাও দেওয়া হয়। কিন্তু বিভিন্ন কারণ দেখিয়ে ও  আরও নথি চেয়ে তা স্থগিত রাখা হয়। দুলালী কোলিয়ারী শ্রমিক ইউনিয়নের সাথে যোগাযোগ করেন।

ই সি এলের আইএনটিউসি নেতা দেবাশীষ রায়চৌধুরী বলেন আমরা সমস্ত বিষয়টি জানার পর দুলালীকে দিয়ে ৪থা ফেব্রুয়ারী ২০২৩-এ জাতীয় তফসিলি উপজাতি কমিশনের কাছে এই বিষয়ে একটি অভিযোগ দায়ের করাই। কমিশন সিএমডির কাছে উত্তর চায়। এরপর ১৩ জুন কমিশনের চেয়ারম্যানের সভাপতিত্বে মামলার শুনানি হয় । কমিশন ১৫ দিনের মধ্যে দুলালির নিয়োগের নির্দেশ দেয় ইসিএলকে। এরপর ৪ জুলাই দুলালীকে নিয়োগপত্র দেয় ইসিএল।

তিনি বলেন, মেয়েটি বিবাহিত নাকি অবিবাহিত তা জানতে ইসিএল-এর ১২ বছর লেগেছে। এই অবহেলার জন্য দায়ীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়ার জন্য আমরা উচ্চ আদালতের শরণাপন্ন হবো বলে ভেবেছি। তবে এটা শ্রমিক আন্দোলনের একটা অন্যতম জয়।

Leave a Reply